• ঢাকা
  • |
  • সোমবার ৯ই আষাঢ় ১৪৩১ রাত ০২:০৮:১১ (24-Jun-2024)
  • - ৩৩° সে:
এশিয়ান রেডিও
  • ঢাকা
  • |
  • সোমবার ৯ই আষাঢ় ১৪৩১ রাত ০২:০৮:১১ (24-Jun-2024)
  • - ৩৩° সে:

অপরাধ

ফ্রিল্যান্সিংয়ের নামে মাদক-পর্ণোগ্রাফি: ৪ যুবককে জেল-জরিমানা

২৪ মে ২০২৩ বিকাল ০৪:১৮:২৯

ফ্রিল্যান্সিংয়ের নামে মাদক-পর্ণোগ্রাফি: ৪ যুবককে জেল-জরিমানা

মধুপুর ( টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি: টাঙ্গাইলের মধুপুরে মাদক ও পর্ণোগ্রাফি সংক্রান্ত অপরাধের দায়ে দুইটি পৃথক ভ্রাম্যমাণ আদালত চার যুবককে অর্থদণ্ডসহ ৬ মাসের জেল দিয়েছেন। এ সময় তাদের কাজে ব্যবহ্যত ৬টি  ল্যাপটপ, একটি ডেস্কটপ কম্পিউটার ও  ১০টি মোবাইল ফোনসেট জব্দ করা হয়।

২৩ মে মঙ্গলবার বিকেলে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও মধুপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শামীমা ইয়াসমীন এবং সহকারী কমিশনার( ভূমি) জাকির হোসাইন এই পৃথক দু’টি ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলো- মধুপুর পৌর এলাকার কাইতকাই গ্রামের শাহজাহান আলীর ছেলে সালমান খান (২২), মধুপুর সদরের ঝন্টু পালের ছেলে অন্তর পাল (২১), মেহেদী হাসান ফাহিম (২৩) ও ধনবাড়ী উপজেলার নরিল্যার রফিকুল ইসলামের ছেলে আশিকুর রহমান (২১)।

মধুপুর উপজেলা নির্বাহী অফিস সূত্র জানায়, পৌর এলাকার টাঙ্গাইল-জামালপুর মহাসড়কে পাশে নয়াপাড়া মসজিদের পাশে জনৈক সাইফুলের বাসা ভাড়া নিয়ে তারা নেটের মাধ্যমে ফ্রিল্যান্সিং ব্যবসার নামে অবৈধ ব্যবসা চালাতো। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মধুপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শামীমা ইয়াসমীন ও সহকারি কমিশন ভূমি জাকির হোসাইনের নেতৃত্বে সেখানে অভিযান চালিয়ে ওই চারজনকে আটক ও তাদের ব্যবহ্যত ল্যাপটপ, কম্পিউটার ও মোবাইল জব্দ করা হয়। এ সময় মাদকও উদ্ধার করা হয়। নেট অফিসের জন্য ভাড়া নেয়া বাসাটি প্রশাসন সিলগালা করে দেয়। খবর পেয়ে বাসার মালিক সাইফুল ইসলাম আসলে তার উপস্থিততে সিলগালা করা হয়। এ সময় পুলিশ ও জনপ্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন।

পরে পৃথক ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে ইউএনও শামীমা ইয়াসমীন প্রথম দুইজন (সালমান ও অন্তর) এবং সহকারী কমিশনার (ভূমি) জাকির হোসাইন পরের দুইজন (মেহেদী ও আশিকুর)কে মাদক ও পর্নোগ্রাফি অপরাধের দায়ে ২০ হাজার করে টাকা জরিমানা এবং ৬ মাসের কারাদণ্ডের আদেশ দেন। সন্ধ্যায় তাদের হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

স্থানীয় জানান, মধুপুরে দীর্ঘ দিন যাবত ফ্রিল্যান্সিংয়ের নামে উঠতি বয়সের যুবকরা রাত জেগে নেটে কাজ করছে। নেট ব্যবসার আড়ালে লক্ষ লক্ষ টাকা উপার্জনে করছেন তারা। রাতভর তাদের ছুটাছুটিতে স্থানীয় অতিষ্ঠ হয়ে উঠে।

অভিযোগ উঠেছে, তারা ফ্রিল্যান্সিংয়ের আড়ালে মাদক ও পর্ণগ্রাফির ব্যবসা করছে। মধুপুরের বিভিন্ন গ্রাম পাড়া মহল্লায় আস্তানা গড়েছে এ নেটের দুনিয়ায় উঠতি বয়সেরা যুবকরা। নেটে কাজের পাশাপাশি মাদক ও পর্ণগ্রাফিতে দিন দিন তারা আসক্ত হয়ে পড়ছে।

মঙ্গলবার গোপন সংবাদের ভিত্তিতে এমনি একটি বাসায় অভিযান চালালে বেড়িয়ে আসে ফ্রিল্যান্সিংয়ের নামে মাদক আর পর্ণগ্রাফির চিত্র। 

Recent comments

Latest Comments section by users

No comment available

সর্বশেষ সংবাদ