• ঢাকা
  • |
  • সোমবার ১০ই আষাঢ় ১৪৩১ রাত ১০:৫৯:১৮ (24-Jun-2024)
  • - ৩৩° সে:
এশিয়ান রেডিও
  • ঢাকা
  • |
  • সোমবার ১০ই আষাঢ় ১৪৩১ রাত ১০:৫৯:১৮ (24-Jun-2024)
  • - ৩৩° সে:

জেলার খবর

পটুয়াখালীর দুমকিতে চাঁদা না দেওয়ায় সন্ত্রাসী হামলার অভিযোগ

২৮ এপ্রিল ২০২৩ সন্ধ্যা ০৭:২৭:২২

পটুয়াখালীর দুমকিতে চাঁদা না দেওয়ায় সন্ত্রাসী হামলার অভিযোগ

পটুয়াখালী প্রতিনিধি: পটুয়াখালীর দুমকি থানার মুরাদিয়া ইউনিয়নের চরগরবদি গ্রামে চাঁদা না দেওয়ায় সন্ত্রাসী হামলা চালানোর অভিযোগ উঠেছে। হামলায় বসতঘর ও দোকান ভাংচুর করা হয়। এসময় ৫ জনকে কুপিয়ে আহত করা হয়েছে।

২৬ এপ্রিল বুধবার বিকেল ৫ টায় একই গ্রামের রিফাত, আবরুল সিকদার, জাকারিয়া, মামুন, মারুফ, হৃদয়, রিয়াজ, সাকিব গাজি, বাদল, রুহুল আমিনসহ অজ্ঞাত ৩০ জন এ হামলা চালায় বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

সন্ত্রাসী হামলায় গুরুত্বর আহতের হলেন হারুন মৃধা (৫০), হাসান মৃধা (৩০), জাহাঙ্গীর মৃধা (৫০), শিরিন বেগম (৪০) ও মাহিনুর (২৫)। হামলায় আহতদের পরে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয়। এ ঘটনায় দুমকি থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন হাসান মৃধা জানান,  তিনি জাহাজে চাকরি করেন। হামলাকারী রিফাত বিভিন্ন সময় তার কাছে চাঁদা দাবি করে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় ঈদের আগে চিঙ্গুরিয়া স্লুইজঘাটে জাহাজ ভিড়ালে রিফাত তার দলবল নিয়ে আমার কাছে চাঁদা দাবি করে। দাবি অনুযায়ী চাঁদা না দেওয়ায় বিভিন্ন হুমকি-ধামকি দেয়।

জানা যায়, ২৫ এপ্রিল মঙ্গলবার বিকেলে হাসান মৃধার ছোট ভাইকে তাদের দোকানে একা পেয়ে আবরুল সিকদারসহ ৮-১০ জন মিলে মারধর করে। ২৬ এপ্রিল বুধবার বিকাল ৫ টায় তারা ফের আসে এবং দোকান ভাংচুর করে টাকা পয়সা লুট করে করে নিয়ে যায়। এসময় দোকানে থাকা তার ছোট ভাইয়ের স্ত্রী মাহিনুরের হাত ভেঙ্গে দেয় হামলাকারীরা। এর কিছুসময় পর রিফাতসহ অজ্ঞাত ৫০ জন সন্ত্রাসী দেশীয় অস্ত্র নিয়ে তাদের বাড়িতে হামলা চালায়।  এসময় তাকে ঘর থেকে টেনে বের করে মারধর শুরু করে। এক পর্যায়ে সন্ত্রাসীরা তার  বাবা-মা ও চাচাকেও কুপিয়ে রক্তাক্ত করে। হামলার পরপরই রিফাতের নেতৃত্বে হাসান মৃধার বসত ঘরে ভাংচুর চালানো হয়।

হামলায় আহতদের দুমকি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হলে সন্ত্রাসীরা সেখানেও হামলা চালায়। পরে বাধ্য হয়ে তাদের পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয় ভর্তি করা হয়।

আহত হারুন মৃধা জানান, এরা এলাকায় চিহ্নিত সন্ত্রাসী এবং নেশাগ্রস্থ। এরা কাউকে মানে না এবং কোনও রকম আইনের তোয়াক্কা করে না। এদের কাজই মারামারি, চাদাবাজীসহ বিভিন্ন অপকর্ম করে বেড়ানো। তারা আমার ছেলের কাছে ৫ লক্ষ টাকা চাঁদা দাবি করে। টাকা না দেওয়ায় আমাদের সবার উপর হামলা চালিয়ে আহত করেছে। আমাদের ঘরবাড়ি ভাংচুর করেছে। আমি এ সন্ত্রাসী হামলার সু্ষ্ঠ বিচার দাবি করছি।

এ বিষয়ে দুমকি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল বাসার জানান, আমি ঘটনাটি শুনেছি। লিখিত অভিযোগ পেলেই তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। 

Recent comments

Latest Comments section by users

No comment available

সর্বশেষ সংবাদ








ফরিদপুরে মাসিক রাজস্ব সম্মেলন অনুষ্ঠিত
২৪ জুন ২০২৪ সন্ধ্যা ০৭:২৭:২১